16
Jan

বারান্দা কাহিনী

গল্প, আড্ডা বা নিজের একান্ত সময় কাটাতে ঘরের মধ্যে একমাত্র আপন জায়গাটি হচ্ছে বারান্দা। আর শীতকালে হয়তো একমাত্র বারান্দাটাই রৌদ্র নিয়ে বসে থাকে। তখন এই কোলাহলময় শহরে প্রকৃতি থেকে একটু উষ্ণতা সংগ্রহে বারান্দাটাই হয় একমাত্র উত্স। তাই চাইলেই আপনার বারান্দাটাকে ভিন্ন

ভাবে সাজিয়ে তুলতে পারেন, যেখানে নিশ্চিন্তে কাটিয়ে দিতে পারেন আপনার অবসর সময়গুলো। যদি আপনি নিজের মতো করে সাজিয়ে নিতে পারেন তবে এই শীতে এক টুকরো বারান্দা হয়ে উঠতে পারে আপনার আপন স্থান।

 বারান্দার সামনে যদি কোনো সুন্দর দৃশ্য থাকে তাহলে কাচ লাগানোর ব্যবস্থা করতে পারেন, নয়তো সাধারণ গ্রিলই লাগান। এতে বারান্দার নিরাপত্তার ব্যাপারটি নিশ্চিত হবে। বারান্দায় টবে ফুল ও পাতাবাহার গাছ লাগাতে পারেন। লতানো কোনো গাছ গ্রিলে তুলে দিন। এতে বাইরের পরিবেশ থেকে কিছুটা আড়াল তৈরি হবে, আবার দেখতেও আকর্ষণীয় হবে। পাখি বা মাছ পোষার অভ্যাস থাকলে তাদের জায়গা দিতে পারেন বারান্দায়। অ্যাকুরিয়ামে রাখতে পারেন রঙ-বেরঙের মাছ। গাছ, মাছ, পাখি মিলিয়ে বারান্দার পরিবেশ হয়ে উঠবে অত্যন্ত সুন্দর ও শান্তিপূর্ণ।

balcony-decoration-ideas14

বারান্দায় চেয়ার-টেবিল পাততে চাইলে আসবাবের উপকরণ একটু সতর্কতার সাথে নির্বাচন করুন। কারণ বারান্দা যেহেতু মোটামুটি খোলা জায়গা তাই রোদ-বৃষ্টি-ধুলায় আসবাব সহজেই নষ্ট হয়ে যেতে পারে। এজন্য রট আয়রন বা প্লাস্টিকের আসবাবপত্র বারান্দার জন্য উপযুক্ত। কাঠ বা বেতের আসবাব দেখতে সুন্দর হলেও এগুলো বারান্দায় রাখলে তাড়াতাড়ি নষ্ট হয়ে যাবার সম্ভাবনা বেশি। টি টেবিল ও চেয়ার আকারে ছোট হওয়াটাই বাঞ্ছনীয়। নয়তো চলাচলে অসুবিধা হবে এবং বেশি বসার জায়গা করা যাবে না

ব্যালকনিতে রাখতে পারেন দোলনা। দোল খেতে খেতে বই পড়ে বা চা খেয়ে কাটিয়ে দিতে পারেন আপনার অবসর যাপনের সময়গুলো। শিকাতে গাছ ঝুলিয়ে অথবা লতানো গাছ গ্রিলে তুলে দিয়ে মনোরম পরিবেশ তৈরি করতে পারেন আপনার এই ছোট্ট জগতের। আপনার আরাম ও মানসিক শান্তির কথা মাথায় রেখেই সাজান আপনার ব্যালকনি।। আসবারের রং রাখুন প্রাকৃতিক রঙে। যেমন – সবুজ, বাদামি, বিস্কুট রং ইত্যাদি। কালো রঙের আসবাবও রাখতে পারেন। এতে বারান্দার পরিবেশে আসবে বৈপরীত্যের ছোঁয়া।

 অনেক সময় বারান্দার মাঝখানে কলাম থাকে। কলামটিকে সুন্দর করে সাজালে তা বারান্দার সৌন্দর্য বাড়াতে পারে অনেকখানি। কলাম সাজাতে ব্যবহার করুন রাস্টিক টাইলস, উডেন প্যানেল, ছোট ছোট আয়না কিংবা ঝোলানো শোপিস।

balcony-flowers-1

বারান্দার ফ্লোরেও বসার ব্যবস্থা করতে পারেন। এজন্য বেছে নিন শতরঞ্জি, শীতল পাটি বা মাদুর। এর ওপর দিন বিভিন্ন আকৃতির রঙিন কিছু কুশন।

ম আলো নাগরিক জীবনের টানাপোড়েনে বাড়ির বারান্দা বা ব্যালকনি আমরা শুধু কাপড় শুকানোর কাজে ব্যবহার করে থাকি। কিন্তু এই এক চিলতে জায়গার সৃজনশীল ব্যবহার আপনাকে দিতে পারে অনেকখানি আনন্দ।র বিভিন্ন ধরনের লাইট ব্যবহারে সংকীর্ণ বারান্দা অনেক বেশি সুন্দর হয়ে উঠতে পারে। রাতের বেলায় বারান্দায় স্নিগ্ধ লাইটগুলোর আলো-ছায়ার খেলায় পরিবেশ হয়ে উঠবে সম্পূর্ণ নান্দনিক ও ভিন্ন আঙ্গিকের। এটা যেমন দেখতে ভালো লাগবে তেমনি আপনার মনের ভেতরে আনন্দময় অনুভূতি সৃষ্টি করবে। বারান্দায় লাইট ও রঙের মধ্যে সামঞ্জস্য রাখার চেষ্টা করুন, এতে আপনার বারান্দায় অন্যরকম এক পরিবেশ তৈরি হবে।

১৬/০১/১০১৫
সেঁজুতি

আরকিডেন ইন্টেরিওর